মিথুন রাশির লোকেদের জন্যে অদ্ভূত চমৎকারী কিছু টোটকা । Gemini Sign Astrological Remedies - Astro Luck

Breaking

May 25, 2020

মিথুন রাশির লোকেদের জন্যে অদ্ভূত চমৎকারী কিছু টোটকা । Gemini Sign Astrological Remedies

মিথুন রাশির জাতক ও জাতিকাদের জন্যে কিছু চমৎকারী টোটকা তুলে ধরা হলো। যার প্রয়োগ করলে জীবনে সকল সমস্যা কেটে যাবে। চাকরি, ব্যবসাতে বিশাল লাভের মুখ দেখতে পারবেন। সাংসারিক ও পারিবারিক সুখ ফিরে আসবে। কিন্তু টোটকা গুলি সঠিক ভাবে প্রয়োগ করবেন।

১) প্রতি বৃহস্পতিবার ও শনিবার নিরামিষ ভোজন করুন। 
২) বাড়িতে মাছে পুষবেন না। পারলে একটি মাছকে পুকুরে বা নদীতে ছেড়ে দিন যেকোনো বুধবার দুপুরে। 
৩) প্রতি দিন ফিটকারী দিয়ে নিজের দাঁত পরিষ্কার করুন বা দাঁতে ছোয়ান। 
৪) বাড়িতে কোনো পশু-পাখি পুশবেননা। যদি পোশেনও তাহলে বস্তু বাড়ি থেকে দূরে বা ছাদে রাখুন। 
৫) যেকোনো বৃহস্পতিবার চাল ও কাচা দুধ কোনো মন্দিরে দান করুন দেখবেন আর্থিক সমস্যা সমাধান হয়েছে। 
৬) প্রতিষ্ঠিত কালী মাতার মন্দিরে পূজা দিন এবং সাথে কুমারী পুজো করুন। 
৭) মুগের ডাল আগের দিন রাতে ভিজিয়ে রাখুন এবং পরের দিন সকালে সেই ডাল পায়রাকে খেতে দিন। 
৮) মাঝে মাঝে দুঃস্থ মানুষকে বা কোনো হাসপাতালে ওষুধ বা ওষুধের জন্যে কিছু অর্থ দান করুন। 
৯) পায়রা, ভেড়া ও ছাগল নিজের বস্তু বাড়িতে রাখবেন না। 
১০) প্রতিদিন সকালে সূর্য প্রণাম করবেন সাথে সূর্যের উপাসনা করুন। 
১১) বাড়িতে নিজের দীক্ষা গুরুকে দিয়ে পূজা-পাঠ কারণ বা নিজের মাকে দিয়ে পূজা পাঠ করান দেখবেন সকল কাজে সাফল্য পাবেন। 
১২) বাড়ির ভিতরে মানিপ্ল্যান্ট গাছ লাগবেন না, বাড়ির বাইরে বা ছাদে লাগান। 
১৩) হিংস্র পশুর চামড়া বা ছাল বাড়িতে রাখবেন না, যদি থাকে তাহলে আগুনে পুড়িয়ে দেয়া ভালো। 
১৪) গলায় বা হতে রুপোর চেন ধারণ করুন। যাদের আর্থিক সমস্যা চলছেন, সেই সমস্যা কেটে যাবে। 
১৫) এই রাশির জাতক ও জাতিকারা উত্তর দিকে কোনো দিনও শুভ কাজ করবেন না। 
১৬) যেকোনো পূর্ণিমার রাতে একটি পোড়ামাটির পাত্রে দুধ ভরে কোনো সুনসান জায়গায় গিয়ে মাটিতে পুঁতে দিন। 
১৭) একটি সবুজ রঙের কাপড়ের টুকরো মধ্যে এক বোতল গঙ্গাজল ভোরে কোনো ফাঁকা মাঠে রেখে দিয়ে আসুন।

*** উপরে লিখিত টোটকা গুলি সঠিক ভাবে মানতে পারলে নিশ্চিত সমস্যার সমাধান হবে। টোটকা প্রয়োগের পরেও যদি সমস্যা না কমে থাকে তাহলে কোনো ভালো জ্যোতিষবিদেকে দিয়ে আপনার জন্মছক বিচার করিয়ে নিন। 

No comments:

Post a Comment